মানবতাবিরোধী অপরাধ : নোয়াখালীর তিন আসামির ফাঁসি

মানবতাবিরোধী অপরাধ : নোয়াখালীর তিন আসামির ফাঁসি

অনলাইন ডেস্ক : মানবতাবিরোধী অপরাধে নোয়াখালীর সুধারামে জামায়াত নেতা আমির আলীসহ তিনজনকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল। এছাড়া অন্য এক আসামিকে দেয়া হয়েছে ২০ বছরের কারাদণ্ড। ২০ বছরের সাজাপ্রাপ্ত আসামির নাম মো. আব্দুল কুদ্দুস। এ রায়ের মধ্য দিয়ে একাত্তর সালে হত্যা, গণহত্যাসহ মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগে ৩১টি রায় দিলেন দুই ট্রাইব্যুনাল।

আজ মঙ্গলবার ট্রাইব্যুনালের চেয়ারম্যান বিচারপতি মো. শাহিনুর ইসলামের নেতৃত্বে তিন সদস্যের ট্রাইব্যুনাল এ রায় দেন। আমীর আলী ছাড়া এ মামলার অন্য তিন আসামি হলেন, মো. জয়নাল আবদিন, মো. আব্দুল কুদ্দুস ও আবুল কালাম। আসামি আবুল কালাম পলাতক।

২০১৬ সালের ২৮ সেপ্টেম্বর এ মামলায় সাক্ষ্যগ্রহণ শুরু হয়। আসামি চারজনের মধ্যে কারাগারে রয়েছেন আমির আহম্মেদ ওরফে রাজাকার আমির আলী, জয়নাল আবদিন ও আব্দুল কুদ্দুস। পলাতক রয়েছেন আবুল কালাম ওরফে এ কে এম মনসুর। মামলার অন্য আসামি ইউসুফ আলী গ্রেপ্তার হওয়ার পর অসুস্থ হয়ে মারা যাওয়ায় তাকে অভিযোগ থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে মুক্তিযুদ্ধ চলাকালে নোয়াখালীর সুধারামে ১১১ জনকে হত্যা-গণহত্যার তিনটি মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগ আনা হয়।




মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Time limit is exhausted. Please reload CAPTCHA.