বিপিএলের উদ্বোধন ৩১ অক্টোবর, খেলবে পাঁচ বিদেশি

বিপিএলের উদ্বোধন ৩১ অক্টোবর, খেলবে পাঁচ বিদেশি

৩১ অক্টোবর জমজমাট উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে শুরু হচ্ছে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ- বিপিএলের পঞ্চম আসর। এবার আসরের প্রতি ম্যাচে পাঁচজন করে বিদেশি খেলোয়াড়কে একাদশে রাখার নতুন নিয়ম ঘোষণা করেছে গভর্নিং কাউন্সিল।

সোমবার বিপিএলের এবারের আসর নিয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে সদস্য সচিব ইসমাইল হায়দার মল্লিক এসব তথ্য জানিয়েছেন।

সংবাদ সম্মেলনে ইসমাইল হায়দার মল্লিক বলেন, পূর্বের ঘোষিত সূচি অনুযায়ী বিপিএল শুরুর তারিখ ছিল ৪ নভেম্বর। তবে নতুন সূচি অনুযায়ী দুইদিন এগিয়ে আনা হচ্ছে শুরুর তারিখ। ২ নভেম্বর থেকে শুরু হবে বিপিএলের পঞ্চম আসর। তবে তারও দুইদিন আগে ৩১ অক্টোবর অনুষ্ঠিত হবে উদ্বোধনী অনুষ্ঠান।

এদিকে এবারের বিপিএলে পাঁচজন করে বিদেশি ক্রিকেটার খেলানোর কথা জানিয়েছেন গভর্নিং কাউন্সিলের সদস্য সচিব।

তিনি বলেন ‘বৈঠকে আটটি ফ্রাঞ্চাইজির মধ্যে পাঁচটিই চেয়েছে পাঁচজন করে বিদেশি ক্রিকেটার খেলাতে। বাকি তিনটি চেয়েছে চারজন করে। মেজরিটির ভিত্তিতে আমরা পাঁচজন বিদেশি খেলানোর পক্ষেই সিদ্ধান্ত নিয়েছি।’

নতুন এ ঘোষণার কারণে একাদশে আগে যেখানে সাতজন দেশি খেলোয়াড় সুযোগ পেতেন সেখানে ছয়জন দেশি খেলোয়াড় খেলতে পারবেন।

তবে এধরনের সিদ্ধান্তের গুঞ্জন শুরু হলে এর বিরোধিতা করে আসছিলেন ঘরোয়া ক্রিকেটাররা।

আইপিএল, সিপিএল, পিএসএল থেকে শুরু করে সবগুলো ফ্রাঞ্জাইজি লিগে চার জন করে বিদেশি ক্রিকেটার এবং সাত জন করে দেশি ক্রিকেটার খেলাতে হয়। বিপিএলের আগের চার আসরেও ছিল একই নিয়ম।

বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের পক্ষ থেকে বলা হচ্ছে, এবারের আসরে একটি দল বেড়ে যাওয়ায় এখন মোট দলের সংখ্যা ৮টি। চার জন করে বিদেশি খেলানো হলে, বাকি আরও সাত জন করে ৮ দলে মোটামুটি মানের ক্রিকেটার প্রয়োজন ৫৬ জন। তবে এই মুহূর্তে বাংলাদেশে এতগুলো মানসম্পন্ন ক্রিকেটার নেই যে, তাদেরকে দিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতামূলক ক্রিকেট খেলানো যাবে এবং বিপিএলকে আকর্ষণীয় করে তোলা যাবে।




মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Time limit is exhausted. Please reload CAPTCHA.