পুলিশকে নিরপেক্ষভাবে মামলার তদন্ত প্রতিবেদন প্রদান করতে হবে: আইজিপি

পুলিশকে নিরপেক্ষভাবে মামলার তদন্ত প্রতিবেদন প্রদান করতে হবে: আইজিপি

নাজিম হাসান,রাজশাহী থেকে:
পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) এ কে এম শহীদুল হক বলেছেন,পুলিশ সদস্যদের নিরপেক্ষভাবে মামলার তদন্ত প্রতিবেদন প্রদান করতে হবে। এবং পুলিশ সদস্যদের শতভাগ নিরপেক্ষ হতে হবে। বর্তমান সরকার দেশ থেকে সন্ত্রাস, জঙ্গীবাদ ও দুর্নীতি নির্মুলে অঙ্গীকার বদ্ধ। আমি প্রত্যাশা করি কর্মজীবনে দেশপ্রেমে অভিসিক্ত হয়ে সমাজ হতে সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ ও দুর্নীতি নির্মূল এবং জনশৃঙ্খলা রক্ষায় কঠোর দায়িত্ববোধের মাধ্যমে অর্পিত দায়িত্ব পালন করতে হবে। পুলিশ সদস্যদের কর্মক্ষেত্রে যোগ্যতার প্রমান দিতে পারলে অবশ্যই পদোন্নতি মিলবে। অন্যদিকে কর্তব্যে অবহেলা, অসৎ সংগ, অসৎ কাজের জন্য পুলিশ বাহিনীতে রয়েছে কঠোর শাস্তির বিধান। গতকাল শনিবার সকালে রাজশাহীর চারঘাটের সারদায় অবস্থিত বাংলাদেশ পুলিশ একাডেমিতে কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যকালে এই নিদের্শশ দেন তিনি। এর আগে তিনি পুলিশ একাডেমিতে ৩৫তম বহিরাগত ক্যাডেট এসআই-১৬ ব্যাচের প্রশিক্ষণ সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রশিক্ষণার্থীদের কুচকাওয়াজ পরিদর্শন করেন। পরে অভিবাদন গ্রহণ করেন। কুচকাওয়াজ পরিদর্শন শেষে পুলিশ মহাপরিদর্শক বিভিন্ন ক্ষেত্রে শ্রেষ্ঠত্ব অর্জনকারীদের পদক প্রদান করেন। প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখতে গিয়ে তিনি বলেন, মামলা তদন্তের ক্ষেত্রে শতভাগ নিরপেক্ষ হতে হবে। সব ধরনের প্রলোভন থেকে নিজেকে দূরে রেখে ন্যায়পরায়ণতা নিশ্চিত করতে হবে। মনে রাখতে হবে তোমাদের তদন্ত প্রতিবেদনের উপর ভিত্তি করে অপরাধীদের শাস্তি নিশ্চিত হবে এবং ভিকটিম প্রতিকার পাবে। এ সময় সমাজ থেকে জঙ্গিবাদ ও মাদক নির্মূলে কঠোর হতেও বলেন আইজিপি। পুলিশ মহাপরিদর্শক একেএম শহীদুল হক বলেন, এর মধ্যে দিয়ে রাষ্ট্র ও জনগণের জানমালের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে হবে। আইনের শাসন প্রতিষ্ঠার পাশাপাশি সমাজে শান্তি-শৃঙ্খলা ও স্থিতিশীলতা বজায় রাখতে হবে। সময়ের পরিবর্তনের সাথে সাথে পুলিশের কর্মপরিধির মাত্রা সংযোজনের মধ্যে অপরাধ সংঘটনের কৌশলও পরিবর্তন করছে অপরাধীরা। কিন্তু তার পরেও কর্মজীবনে সততা ও নিষ্ঠার সাথে কাজ করে দেশ গঠন ও জনসেবায় গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখে জনবান্ধব ও সেবাধর্মী পুলিশিংয়ের উজ্জল দৃষ্টান্ত স্থাপন করতে হবে। প্রশিক্ষণের পর কর্মজীবনে গিয়ে দেশপ্রেমে অভিষিক্ত হয়ে সমাজ থেকে সন্ত্রাস নির্মূলে, জনশৃঙ্খলা রক্ষায় এবং জনগণের নিরাপত্তা বিধানে গভীর নিষ্ঠা ও কঠোর দায়িত্ববোধের মাধ্যমে অর্পিত দায়িত্ব যথাযথভাবে পালন করতে হবে। জনগণের প্রতি নিষ্ঠুর ও অমানবিক আচরণ পরিহার করে মানবাধিকার রক্ষায় নারী ও শিশুদের অধিকার রক্ষায় পুলিশ বাহিনীকে অগ্রণী ভূমিকা পালন করতে হবে। আইজিপি শহীদুল হক বলেন, বাংলাদেশ পুলিশ বাহিনীতে ভালো কাজের জন্য রয়েছে পদোন্নতি, তেমনি খারাপ কাজের জন্য রয়েছে কঠোর শাস্তি। সেই দিক লক্ষ্য রেখে সামনের দিনে ন্যায়, নিষ্ঠা ও সততার সাথে তোমাদের উপর অর্পিত দায়িত্ব যথাযথভাবে পালন করতে হবে। পুলিশ একাডেমীর প্রিন্সিপ্যাল নাজিবুর রহমান এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ভাইস প্রিন্সিপ্যাল আব্দুল¬াহ আল মাহমুদ বিপিএম, রাজশাহী রেঞ্জের ডিআইজি এম খুরশীদ হোসেন, অতিরিক্ত ডিআইজি নিশারুল আরিফ, রাজশাহী মহানগর পুলিশ কমিশনার মাহবুবুর রহমান, রাজশাহী পুলিশ সুপার মোয়াজ্জেম হোসেন ভূঁঞাসহ একাডেমির উচ্চ পর্যায়ের কর্মকর্তাবৃন্দ প্রমুখ।#